কিশোরগঞ্জে ফেসবুক স্টেটাসে শারিরিক প্রতিবন্ধী জুয়েল পেলো হুইল চেয়ার

নিজস্ব প্রতিনিধি : সাংবাদিক আমিন সাদীর ফেসবুক স্টেটাসে শারিরিক
প্রতিবন্ধী জুয়েল পেলো হুইল চেয়ার। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী ও স্বল্পোন্নত দেশ
থেকে উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণ উদযাপন উপলক্ষে কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসন কর্তৃক
আয়োজিত উত্তরণ মেলার দ্বিতীয় দিনের সমাপনী অনুষ্ঠানে দুইজন অসচ্ছল
প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের মাঝে হুইল চেয়ার বিতরণ করা হয়।
হুইল চেয়ার বিতরণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সিভিল সার্জন ডা. মো. মুজিবুর
রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফা, ২৫০
শয্যা জেনারেল হাসপাতাল কিশোরগঞ্জ এর তত্ত্বাবধায়ক ডা. মো. হেলাল উদ্দিন,
কিশোরগঞ্জ সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী রিতেশ বড়ুয়া, জেলা
সমাজসেবা কার্যালয়ের উপপরিচালক মোঃ কামরুজ্জামান খান, ভোক্তা অধিকার
সংরক্ষণ অধিদপ্তর এর সহকারী পরিচালক হৃদয় রঞ্জন বণিক, হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ
ট্রাস্টের সহকারী পরিচালক মো. হুমায়ুন কবির, প্রতিবন্ধী বিষয়ক কর্মকর্তা
মিঠুন চক্রবর্ত্তী, রিসোর্স শিক্ষক মো. শফিকুল ইসলাম, ক্লিনিক্যাল
ফিজিওথেরাপিস্ট মো. তামীম হোসাইনসহ প্রতিবন্ধী সেবা ও সাহায্য কেন্দ্রের
কর্মচারীবৃন্দ।
উল্লেখ্য চলতি বছরের জানুয়ারি মাসের ১৪ তারিখে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা মহিনন্দ
ইতিহাস ঐতিহাস ঐতিহ্য সংরক্ষ্ণ পরিষদের সভাপতি সাংবাদিক আমিনুল হক
সাদীর ফেসবুকে “একটি হুইল চেয়ার ও শারিরিক চিকিৎসা পেলে অন্তত জীবনের
বাকীটা সময় ভালভাবে চলতে পারতেন এমন আক্ষেপ টেনিস খেলার মোড়ে বসা থাকা
প্রতিবন্ধী জুয়েলের” শিরোনামে লিখেন। বিষয়টি সমাজসেবা কাযার্লয়ের
উপপরিচালক মোঃ কামরুজ্জামান খান ও প্রতিবন্ধী বিষয়ক কর্মকর্তা মিঠুন
চক্রবর্ত্তীর দৃষ্টিগোচর হলে সাংবাদিক সাদীকে তারা আশস্ব করেন প্রতিবন্ধী
জুয়েলকে একটি হুইল চেয়ার প্রদান করবেন। গতকাল রবিবার কিশোরগঞ্জ জেলা
প্রশাসন কর্তৃক আয়োজিত উত্তরণ মেলার দ্বিতীয় দিনে কিশোরগঞ্জ প্রতিবন্ধী
সেবা ও সাহায্য কেন্দ্রের স্টলে আনুষ্ঠানিকভাবে সদরের রশিদাবাদ ইউনিয়নের
বেরুয়াইল এলাকার মন্টু মিয়ার পুত্র প্রতিবন্ধী জুয়েলকে হুইল চেয়ার প্রদান করেন।
এছাড়াও সদর উপজেলার মহিনন্দ ইউনিয়নের ভাটোয়াপাড়া এলাকার নয়ন মিয়ার
অটিজম প্রতিবন্ধী কন্যা তাকমিনা আক্তার প্রিয়াকেও একটি হুইল চেয়ার প্রদান
করা হয়েছে।
প্রতিবন্ধী বিষয়ক কর্মকর্তা মিঠুন চক্রবর্ত্তী জানান, উত্তরণ মেলায় ছিয়াত্তর
টি স্টলের মধ্যে কিশোরগঞ্জ প্রতিবন্ধী সেবা ও সাহায্য কেন্দ্রটি সেরা দশম স্থান
অর্জন করেছে ও শুভেচ্ছা উপহার পেয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *